নিঝুম দ্বীপে বনদস্যুদের হামলায় বন বিভাগের রেঞ্জারসহ ১৪জন আহত

0
110

হাতিয়া (নোয়াখালী) সংবাদদাতা :: নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার নিঝুমদ্বীপে বনদস্যুদের হামলায় বনবিভাগের রেঞ্জারসহ অন্তত ১৪ জন আহত হয়েছে। আহতের মধ্যে সাত জনকে বুধবার সন্ধ্যায় হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যদের নিঝুমদ্বীপে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। বুধবার দুপুরে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে।

আতরা হলেন, নিঝুমদ্বীপের রেঞ্জার ফিরোজ আলম চৌধুরী (৫৩), বিট অফিসার নুর আলম হাফিজ (৪০), সহকারী বিট অফিসার নুর উল্যা চৌধুরী (৪০), ফরেস্টার আবু মুসা খান (৫৮), আশরাফুল মমিন (৩৫), জিয়াউর রহমান (২৮),মামুনর রশিদ (২৬), মাজহারুল ইসলাম (২৯), দুদু মিয়া (২৮), সামাদ (৩০), শাহ আলম (৩২), মোশারফ হোসেন (২৮) ও আলমগীর হোসেন (৩২)।

রেঞ্জার ফিরোজ আলম চৌধুরী সাংবাদিকদের জানান, বেলা ১২ টার দিকে তিনিসহ বনবিভাগের ১৯ জনের সদস্য নিঝুমদ্বীপের বৌ বাজার নামক স্থানে গিয়ে দেখেন অন্তত ৫০ জন বনবিভাগের গাছ কাটছেন। এ সময় তারা বাধা দেন এবং ঘটনা সঙ্গে জড়িত থাকায় ইউসুফ নামে এক বনদুস্যুকে আটক করেন। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে আশপাশের নারীসহসহ অন্তত দেড়শ বনদস্যু ও তাদের লোকজন তাদের ওপর বিভিন্ন লাঠি সোটা ও দেশীয় অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে হামলা করে। এ সময় সহকারী বিট অফিসার নুর উল্যার কাছ থেকে চাইনিজ রাইফেল ছিনিয়ে উল্টো তাদের ওপর গুলি করে। পরে স্থানীয় ফাঁড়ির পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে বনদস্যুদের কবল থেকে তাদের এবং ঘটনার অনেক পরে ছিনিয়ে নেয়া চাইনিজ রাইফেলটি পরিত্যিক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে।

এ বিষয়ে বিভাগীয় বনকমর্তা আমির হোসাইন চৌধুরী ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, সরকারি কাজে বাধা দেয়ার অপরাধে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে