নোয়াখালীতে “জয়িতা” সম্মাননা পেলেন কোঃগঞ্জের রামপুরের অঞ্জলী প্রভা ভৌমিক

0
113

সোহরাব হোসেন বাবর :: নোয়াখালীতে আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস উদযাপন উপলক্ষ্যে পাাঁচ ক্যাটাগরিতে সফল পাঁচ নারীকে জয়িতা সম্মামনা প্রদান করেছে। কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের অঞ্জলী প্রভা ভৌমিক সফল জননী ক্যাটাগরিতে জয়িতা সম্মাননা পেলেন।

সফল জননী জয়িতা অঞ্জলী প্রভা ভৌমিক জন্ম ১৯৬২ সনের ১৫ জুলাই। সাধারণ মধ্যবিত্ত পরিবারে জন্মগ্রহনকারী অঞ্জলী প্রভা ৫ম শ্রেনীর পর পড়ালেখা করতে পারেননি। মাত্র ১৬ বছর বয়সে সূধীর চন্দ্র ভৌমিকের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়ে শশুর বাড়ীতে পড়ি দেন। স্বামী ছিলেন পেশায় একটি মুদি দোকানের সেলসম্যান। অভাব ও টানাটানির সংসারে ২মেয়ে ও ৩ ছেলের মা হন অঞ্জলী প্রভা ভৌমিক। অভাব যেন আরো প্রকট হল। বিভিন্ন এনজিও থেকে ক্ষুদ্রঋণ নিয়ে স্বামীকে বাঁশের ব্যবসা ধরিয়ে দেন আর নিজে দুধের গরু, হাঁস-মুরগী পালন শুরু করেন। চরম ধৈর্য্য ও সাহসিকতার সাথে শত বাধা-বিপত্তি উপেক্ষা করে সন্তানদের পড়ালেখা করান। পড়ালেখা করাতে গিয়ে নিজের শেষ সম্বল স্বর্ণের গহনাদিও বিক্রি করে দেন। প্রথম সন্তান ঝর্ণা রানী ভৌমিককে অস্বচ্ছল অবস্থায় বিয়ে দেন। বাকি ৪ সন্তানের মধ্যে বড় ছেলে কাঞ্চন ভৌমিক বিএসসি ইঞ্জিনিয়ার হয়ে বর্তমানে কেডিএস টেক্সটাইলে কর্মরত। মেজ ছেলে দিপক ভৌমিক স্থানীয় বামনী উচ্চ বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক হিসেবে কর্মরত, সেজ ছেলে স্বপন ভৌমিক চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কম্পিউটার সাইন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং ডিগ্রি অর্জন করে বর্তমানে বামনী কলেজে আইসিটিতে প্রভাষক পদে কর্মরত, ছোট মেয়ে সূবর্ণা ভৌমিক নোয়াখালী কলেজে মাষ্টার্সে অধ্যয়নরত।

https://www.noakhalitimes.com/অঞ্জলী প্রভা ভৌমিক আজ সমাজে প্রতিষ্ঠিত এক নারী। যিনি দারিদ্যতাকে জয় করে দেশ ও জাতির উন্নয়নে অবদান রেখে উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করে সমাজে অনেক অবহেলিত ও অস্বচ্ছল নারীকে স্বাবলম্বী করার লক্ষে অনুকরনীয় হয়ে আছেন। সন্তানেরা মায়ের মুখে হাঁসি ফুটিয়েছে। সময়ের পরিক্রমায় তিনি সফল জননী হিসেবে আজ প্রতিষ্ঠিত।

কোম্পানীগঞ্জের এই প্রতিষ্ঠিত সফল জননীকে ‘‘জয়িতা’’ সম্মাননায় ভূষিত করল নোয়াখালী জেলা প্রশাসন ও জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর।

জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে শুক্রবার সকাল সাড়ে দশটায় জেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা শাহিদা আক্তারের সভাপতিত্বে সম্মাননা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক বদরে মোমিন ফেরদৌস। অনুষ্ঠানে সম্মাননা প্রাপ্তরা হলেন অর্থনৈতিকভাবে সাফল্য অর্জনকারী ক্যাটাগরিতে নোয়াখালী সদর উপজেলার আছিয়া খাতুন, শিক্ষা ও চাকুরী ক্ষেত্রে সোনাইমুড়ি উপজেলার রুমা আক্তার, সফল জননী ক্যাটগরিতে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার অঞ্জলী প্রভা ভৌমিক, নির্যাতনের বিভীষিকা মুছে ফেলে নতুন উদ্যোমে জীবন শুরু করা নারী ক্যাটাগরিতে সেনবাগ উপজেলার সামছুন নাহার ও সমাজ উন্নয়নে অসামান্য অবদান ক্যাটাগরিতে হাতিয়া উপজেলার নাছিমা খানম।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে