স্বাস্থ্য খাত নিয়ে এবার মুখ খুললেন এমপি একরাম

0
109
https://noakhalitimes.com

নিউজ ডেস্ক :: স্বাস্থ্য খাত নিয়ে এবার মুখ খুলেছেন নোয়াখালী-৪ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ একরামুল করিম চৌধুরী। ফেসবুকে এক ভিডিও বার্তায় তিনি স্বাস্থ্য খাতের নানা অনিয়ম নিয়ে কথা বলেছেন। যা এরই মধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

এমপি একরামুল করিম বলেন, কিটের অভাবে আজকে নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর এবং ফেনী- এই তিন ডিস্ট্রিকের করোনা পরীক্ষা বন্ধ। যার কারণে মানুষের মধ্যে হাহাকার সৃষ্টি হয়েছে। দুই/তিন দিন আগে আমি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়কে আজগুবি বিভাগ বলেছিলাম। কিন্তু এটা আজগুবি নয়, এটা মহা আজগুবি বিভাগ। আমাকে একজন বললেন- আজকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিজেই নাকি বলেছেন কিটের অভাব। কিন্তু জানামতে বাংলাদেশের তিনটা চারটা ব্যবসায়ী কোম্পানি প্রায় ১০ লাখ কিট এনে রেখেছে। কিন্তু তারা দিতে পারছে না মিঠু সিন্ডিকেটের কারণে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ‘মিঠু সিন্ডিকেট’ যতক্ষণ পর্যন্ত ভাঙা না যাবে, ততক্ষণ এই মন্ত্রণালয় কখনো ভালো থাকবে না।তিনি আরও বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে বলবো তিন দিনে যেভাবে ক্যাসিনোকে ধ্বংস করে জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছে গেছেন, স্বাস্থ্যসেবার একজন কর্মী ও বাংলাদেশের একজন নাগরিক হিসেবে অনুরোধ করবো।

আপনি এই সিন্ডিকেটটা সেভাবে ভাঙার ব্যবস্থা করুন। এই সিন্ডিকেট ভাঙতে পারলে দেশের মানুষ অনেক সুফল পাবে। এই মিঠু গ্যাংরা গোটা স্বাস্থ্য বিভাগকে কাবু করে রেখেছে।

একরামুল করিম বলেন, প্রাণের স্পন্দন ছাত্রলীগ, যুবলীগ, আমার মাথার মুকুট আওয়ামী লীগসহ প্রত্যেকটি সংগঠন থেকে নেতাকর্মী নিয়ে নোয়াখালীর ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে করোনাবিরোধী সংগ্রাম কমিটি গঠন করুন। প্রয়োজনে বিরোধী দলের কেউ যদি আসতে চায় তাদেরকে কমিটিতে নেন। এবং যে বাড়িতে করোনা আক্রান্ত সেই বাড়িতে লাল পতাকা এবং সাইনবোর্ড টানিয়ে দিন।

তিনি বলেন, করোনা আক্রান্তদের বাড়ি ঢোকা এবং বের হওয়া যাবে না। এটা আমার নির্দেশনা রইল। কোন এমপি বা কে কি বললো সেটা না আমি নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে অনুরোধ করছি, নির্দেশনা দিচ্ছি গড়ে তুলুন সংগ্রাম কমিটি। মুক্তিযুদ্ধের চিন্তা করে এই অদৃশ্য শক্তির জন্য মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আপনারা দাঁড়িয়ে যান। আপনারা একটু কষ্ট গোটা দেশকে রক্ষা করবে। সকলে ভালো থাকুন। আবারও প্রধানমন্ত্রীর কাছে অনুরোধ করবো এই সিন্ডিকেট যতক্ষণ না পর্যন্ত আপনি ত্রাস করতে না পারবেন, ততক্ষণ পর্যন্ত সাধারণ মানুষ ওই সেবা পাবে ন। সেই সেবা আপনি এবং আপনার বাবা (শেখ মুজিবুর রহমান) যে স্বপ্ন দেখেছিলেন, যে স্বপ্ন আপনি এখন দেখেছেন, সেই স্বপ্ন অবশ্যই বাস্তবায়ন করতে পারবেন। যদি এই সিন্ডিকেট ভেঙে দিতে পারেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে