বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচন থেকে সরকারকে শিক্ষা নিতে হবে- আবদুল কাদের মির্জা

Date:

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের ছোট ভাই আবদুল কাদের মির্জা নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে মেয়র পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি ভোট পেয়েছেন ১০ হাজার ৭৩৮। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি মনোনীত ধানের শীষের মেয়র প্রার্থী কামাল উদ্দিন চৌধুরী পেয়েছেন এক হাজার ৭৭৮ ভোট। জামায়াত সমর্থিত মোবাইল প্রতিক নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী মাওলানা মোশারফ হোসেন পেয়েছেন  ১হাজার ৪শ ৫১ ভোট।

শনিবার (১৬ জানুয়ারি) রাত ৮টার দিকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন সিনিয়র নির্বাচন কর্মকর্তা রবিউল আলম।

এদিকে, ফলাফল ঘোষণার পরপরই বসুরহাট রুপালী চত্বরে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে এক সংক্ষিপ্ত সভা করেন আবদুল কাদের মির্জা। সেখানে তার এ বিজয়কে জনগণ ও আওয়ামী লীগের ত্যাগী নেতাদের উৎসর্গ করে তিনি বলেন, এ নির্বাচন থেকে সরকারকে শিক্ষা নিতে হবে, যোগ্য প্রার্থী দিলে ভোটে জয়লাভ করা যায়।
সেখানে তিনি বক্তব্যে প্রশাসন, নির্বাচন কমিশন, সব আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, গণমাধ্যমকর্মী, দলীয় নেতাকর্মী, বিভিন্ন রাজনৈতিক দল এবং প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীসহ সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। এ সময় কাদের মির্জা বলেন, আজকের এই বিজয় অন্যায়-অবিচার জুলুমের বিরুদ্ধে ন্যায় প্রতিষ্ঠার বিজয়, বাঙালি জাতির স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের বিজয়, এই বিজয় জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের বিজয়, এই বিজয় জননেতা ওবায়দুল কাদেরের উন্নয়নের বিজয়। এ সময় তিনি সারাদেশে দলের ত্যাগী নেতাকর্মীদের প্রতি বিজয়কে উৎসর্গের ঘোষণা দেন। তিনি বলেন, আমি আমৃত্যু অন্যায়-অবিচার, অপরাজনীতির বিরুদ্ধে কথা বলে যাব। যেসব ওয়াদা আপনাদের কাছে করেছি, জীবনের শেষ রক্তবিন্দু দিয়ে হলেও সেটা পূরণ করব।

এর আগে সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়ে শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ চলে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। ভোটার উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মতো। বিশেষ করে নারী ভোটারদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে জমে উঠে এবারের বসুরহাটের পৌর নির্বাচন।

নির্বাচনের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বজায় রাখতে মাঠে ছিল পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি ও আনসারের ৪০০ সদস্য। র‌্যাবের তিনটি টিম, বিজিবি চার প্লাটুন, পুলিশের মোবাইল টিম ৯টি, স্ট্রাইকিং টিম দুটি, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ৯ জন এবং জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট একজন।

নোয়াখালী বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে প্রধান দুই দলের প্রার্থীসহ মেয়রপ্রার্থী তিনজন, কাউন্সিলর ২৫ এবং সংরক্ষিত নারী প্রার্থী সাতজন। ১৯৯০ সালে প্রতিষ্ঠিত বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে মোট ভোটার ২১ হাজার ১১৫ জন, নারী ভোটার ১০ হাজার ৪৯৪ জন এবং পুরুষ ১০ হাজার ৬২১ জন।

উল্লেখ্য, বসুরহাট পৌরসভার মেয়রপদে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের ছোট ভাই আবদুল কাদের মির্জা ইতোমধ্যে তার বিভিন্ন পথসভা, কর্মিসভায় হাফ ডজন জেলা ও কেন্দ্রীয় নেতাদের নিয়ে মন্তব্য ও সমালোচনা করে দেশের রাজনীতিতে আলোচনার কেন্দ্রে পরিণত হন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Share post:

Subscribe

Popular

More like this
Related

সামাজিক ও রাজনৈতিক ক্ষেত্রে নারীদের স্বাবলম্বী করার জন্য আমাকে ভোট দিন -পারভীন মুরাদ

কোম্পানীগঞ্জ প্রতিনিধি :নোয়াখালী কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে উপজেলা মহিলা...

অবশেষে উচ্চ আদালতের আদেশে প্রতীক পেলেন মন্ত্রীর ছোট ভাই শাহাদাত

কোম্পানীগঞ্জ প্রতিনিধি:উচ্চ আদালতের আদেশে নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে...

দীর্ঘ ২মাস পর বাবা-মায়ের বুকে ফিরলেন কোম্পানীগঞ্জের নাবিক রাজু

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: দীর্ঘ ২ মাস অপেক্ষার পর...

হাইকোর্টে আপিল করে প্রার্থীতা ফিরে পেলেন ওবায়দুল কাদেরের ছোটভাই শাহাদাত হোসেন

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: হাইকোর্টে আপিল করে প্রার্থীতা ফিরে...