কবিরহাটে একই স্থানে যুবলীগ’র দুই গ্রুপের সমাবেশকে কেন্দ্র করে ১৪৪ ধারা জারি

Date:

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: যুবলীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার কবিরহাটে একই সময় একই স্থানে তারুণ্যের সমাবেশ ডাকাকে কেন্দ্র করে আইন শৃঙ্খলা অবনতির আশংকায় ১৪৪ ধারা জারি করেছে উপজেলা প্রশাসন। এসময় কবিরহাট পৌর এলাকায় গণ-জমায়েত, সভা-সমাবেশ, মিছিল, র‌্যালি ও শোভাযাত্রা নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

দুপুর ১টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত এ আদেশ বলবত ছিলো। এ খবর নিশ্চিত করে জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফাহিমা সুলতানা। এ আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে ফৌজদারী কার্যবিধি মোতাবেক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানান তিনি। এ সংক্রান্ত একটি আদেশ ইতোমধ্যে জারি করা হয়েছে।

জানাগেছে, যুবলীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টায় কবিরহাট সরকারি কলেজ মাঠে তারুণ্যের সমাবেশের আয়োজন করে উপজেলা যুবলীগ। একই সময় কলেজ গেইট সংলগ্ন মুজিব চত্বরে একই কর্মসূচীর ডাক দেয় পৌরসভা যুবলীগ। দুপুরের মধ্যে সমাবেশকে কেন্দ্র করে স্টেইজ নির্মানের কাজও শুরু করা হয়। যুবলীগের দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি কর্মসূচী ও কমিটি নিয়ে গত কয়েকদিন ধরে উত্তেজনা বিরাজ করছিলো। ফলে উভয় পক্ষের নেতাকর্মীদের মধ্যে বিরাজমান উত্তেজনাকে কেন্দ্র করে সভাস্থল’সহ কবিরহাট পৌর এলাকায় আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি হতে পারে এবং জনসাধারণের জানমালের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে পৌর এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি করে উপজেলা প্রশাসন। দুপুর থেকে পৌর এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে, টহলে রয়েছে র‌্যাব ও বিজিবি।

কবিরহাট পৌরসভা যুবলীগের সভাপতি আবুল বাসার বাবুল বলেন, আমরা কেন্দ্রের নির্দেশে তারুণ্যের সমাবেশের আয়োজন করেছি। উপজেলা যুবলীগের ওপর আমাদের আস্থা না থাকায় আমরা পৌরসভার পক্ষ থেকে আলাদা আয়োজন করেছি।

কবিরহাট উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আবু জাফর আবির বলেন, কেন্দ্রীয় যুবলীগের আদেশক্রমে উপজেলা যুবলীগ বৃহস্পতিবার বিকেলে কবিরহাট বাজারে র‌্যালি ও পরে সরকারি কলেজ মাঠে তারুণ্যের সমাবেশের আয়োজন করা হয়। পৌরসভা যুবলীগের সাথে সমন্বয় করে সভা করার আহবান করা হলেও তারা নিজেরাই পাল্টা সমাবেশের ডাক দিয়েছে। আমাদের দলের মধ্যে কোন গ্রুপিং নেই কিন্তু তারা কেনো এটা করেছে তা আমার জানা নেই।

প্রসঙ্গ: কবিরহাট উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন যুবলীগের কমিটি গঠন নিয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পৌর সভার মেয়র জহিরুল হক রায়হানের সঙ্গে বিরোধ দেখা দেয় উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আবু জাফর আবির ও সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলামের। এ বিরোধের জের ধরে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি-সম্পাদকের বিরুদ্ধে গত ২০ অক্টোবর সন্ধ্যার দিকে উপজেলার নরোত্তমপুর, ঘোষবাগ ও ধানসিঁড়ি ইউনিয়ন শাখার নবগঠিত আহ্বায়ক কমিটি প্রত্যাখ্যান করে ঝাড়ু মিছিল ও সমাবেশ করেন পদবঞ্চিত নেতাকর্মীরা।  অভিযোগ রয়েছে, এ ঝাড়ু মিছিলের নেপথ্যে ছিল মেয়র রায়হানের হাত।

এ ব্যাপারে কবিরহাট পৌরসভার মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জহিরুল হক রায়হান বলেন, আমার কোনো গ্রুপ নেই। আমার সঙ্গে কারো বিরোধ নেই। দলের সবাই আমার জন্য সমান। আমি দুই গ্রুপকে নিয়ে বিষয়টি সমাধান করা যায় কিনা দেখবো।

কবিরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, ইতোমধ্যে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভবিক রাখতে পৌর এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।এসময়ে রয়েছে র‌্যাব ও বিজিবি টহল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Share post:

Subscribe

Popular

More like this
Related

নোয়াখালী জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদকসহ গ্রেপ্তার ৫

সদর (নোয়াখালী) সংবাদদাতা :: নোয়াখালী জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক...

কোম্পানীগঞ্জে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহে শ্রেষ্ঠ হয়ে পুরস্কার পেলেন যারা

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি :: জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০২৪ উপলক্ষে...

কোম্পানীগঞ্জে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট ফাইনাল খেলা অনুুষ্ঠিত

কোম্পানীগঞ্জ প্রতিনিধি :নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ...

কোম্পানীগঞ্জে পরকীয়ার প্রতিবাদ করায় বর্বর স্বামীর নির্যাতনের শিকার স্ত্রী হামিদা

কোম্পানীগঞ্জ প্রতিনিধি :যৌতুক ও নারীলোভী স্বামীর নির্যাতনে নোয়াখালী সদর...